দিনাজপুর বার্তা ২৪ | Dinajpur Barta 24

ব্রেকিং নিউজ
উন্মুক্ত হয়েছে পৃথিবীর সবচেয়ে উঁচু হোটেল
দিনাজপুর বার্তা জুলাই ১, ২০২১, ৩:১৫ পূর্বাহ্ণ | পড়া হয়েছে ৪৩৫ বার |

দিনাজপুর বার্তা ২৪.কম ডেস্ক ॥ চীনের সাংহাই বিলাসবহুল সব হোটেলের জন্য বিখ্যাত। গত ১৯ জুন সেখানে নতুন করে চালু হয়েছে জে হোটেল সাংহাই টাওয়ার। এটি বিশ্বের সবচেয়ে উঁচু হোটেল বলে দাবি করেছে কর্তৃপক্ষ। চীনের সবচেয়ে উঁচু ভবন সাংহাই টাওয়ার। ৬৩২ মিটার উঁচু ভবনটির টপ ফ্লোরেই অবস্থান জে হোটেলের। পৃথিবীর সবচেয়ে উঁচু হোটেলের দম্ভ ছাড়াও জে হোটেল আসলে দেখতে কেমন? এতে কক্ষ আছে ১৬৫টি, যার মধ্যে ৩৪টি স্যুইট। প্রতিটি কক্ষের সঙ্গে ইন্ডোর সুইমিং পুল, হার্মিস অ্যান্ড ডিপ্টিকের টয়লেট্রিজ, ম্যাগনোলিয়া পাপড়ি আকারের বাথটাব, আর স্পা রয়েছে। হোটেলটির চারটি স্যুইটের আকার ৩৮০ বর্গমিটার করে। বেডরুমের পাশাপাশি এসব স্যুইটে পার্লার, পড়াশোনার ঘর, রান্নাঘর, সাইকোথেরাপি এরিয়া আর কাপড় বদলানোর জন্য আলাদা কক্ষ রয়েছে। হোটেলটির সবচেয়ে কমদামী কক্ষে প্রতি রাত কাটাত খরচ হবে প্রায় ৫৫৭ মার্কিন ডলার। জে হোটেলের মালিক জিন জিয়াং ইন্টারন্যাশনাল। এটি চীনের অন্যতম বড় হোটেল ও ট্যুরিজম গ্রুপ। এছাড়াও এটি রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন অ্যাসেট সুপারভিশন অ্যান্ড অ্যাডমিনিস্ট্রেশন কমিশনের অংশ। করোনাভাইরাসের মহামারির কারণে বিশ্বজুড়ে ভ্রমণ বাণিজ্যে ধ্বস নামলেও পৃথিবীতে সবচেয়ে ভালো আর নতুনতম হোটেলের প্রতিযোগিতা থেমে নেই। হংকংয়ের রিটজ কার্লটন দাবি করেছে তাদের রয়েছে পৃথিবীর সবচেয়ে উঁচু হোটেল পুল এবং বার রয়েছে।
আবার দুবাইয়ে চলছে বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ হোটেল গড়ার প্রতিযোগিতা। শহরটির ৩৫৬ মিটার দীর্ঘ জেভোরা হোটেলকে ২০১৮ সালে বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ হোটেলের স্বীকৃতি দেয় গিনেজ বুক অব ওয়াল্ড রেকর্ড। তবে সেখানে বর্তমানে নির্মাণ করা হচ্ছে সিয়েল টাওয়ার। নির্মাণ সম্পন্ন হলে এটির উচ্চতা হবে ৩৬০.৪ মিটার। উল্লেখ্য, দীর্ঘ হোটেলের স্বীকৃতি তারাই পায় যেগুলোর পুরো ভবনটিই হোটেল হিসেবে ব্যবহার হয়। অন্যদিকে সাংহাইয়ের জে হোটেল কেবল একটি ভবনের উপরের অংশে অবস্থিত।

এই পাতার আরো খবর -
৩১শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ
দিনাজপুর, বাংলাদেশ
ওয়াক্তসময়
সুবহে সাদিকভোর ৫:৩১ পূর্বাহ্ণ
সূর্যোদয়ভোর ৬:৫০ পূর্বাহ্ণ
যোহরদুপুর ১২:১৯ অপরাহ্ণ
আছরবিকাল ৪:১২ অপরাহ্ণ
মাগরিবসন্ধ্যা ৫:৪৮ অপরাহ্ণ
এশা রাত ৭:০৭ অপরাহ্ণ
সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদকীয়